আরকে রায়হান https://www.rkraihan.com/2022/01/nogod-agent-account.html

নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম ২০২২


আপনি কি নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম জানতে ইচ্ছুক? যদি আপনি নগদের উদ্যোক্তা হতে চান তাহলে নগদ একাউন্ট সম্পর্কে বিস্তারিত আপনার অবশ্যই জানা উচিত।
নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম ২০২২, নগদ একাউন্ট সম্পর্কে বিস্তারিত, নগদ উদ্যোক্তা হওয়ার নিয়ম, নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খুলতে হবে কেন, নগদ উদ্যোক্তা কমিশন কত, নগদ উদ্যোক্তা পয়েন্ট নগদ উদ্যোক্তা কমিশন কত
নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম ২০২২

নগদ এজেন্ট অ্যাকাউন্ট যারা ব্যবহার করে তারাই নগদ এর উদ্যোক্তা। আপনি যদি নগদ এজেন্ট অ্যাকাউন্ট ব্যবহার করে নগদের রিচারজ এর ব্যবসা করতে চান তাহলে আপনাকে নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট করতে হবে। যদি আপনি নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম না জেনে থাকেন তাহলে আমাদের স্টেপ গুলো ফলো করবেন তাহলে নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম জেনে যাবেন।

সুচিপত্রঃ নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম | নগদ একাউন্ট সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য

যেসব কাগজ পত্র লাগবে নগদ একাউন্ট করার জন্য | নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম

নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম - নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট করার জন্য আপনাদের কিছু প্রয়োজনীয় কাগজপত্র লাগবে। কি কি কাগজ পত্র লাগবে নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট করতে তা নিচে আমরা দিয়ে দিলাম। নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম জানুনঃ

  • ভোটার আইডি কার্ড বা জাতীয় পরিচয় পত্রের কপি।
  • পাসপোর্ট সাইজের দুই কপি ছবি।
  • লোক সমাগম দেখে ভালো জায়গায় একটি দোকান করতে হবে।
  • সেই দোকানের ট্রেড লাইসেন্স

নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম | নগদ উদ্যোক্তা হওয়ার নিয়ম

  • যেহেতু আপনি নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট করে ব্যবসা করতে চাইতেছেন সেজন্য আপনাকে একটা দোকান দিতে হবে। দোকান টি এমন জায়গায় হতে হবে যেখানে সব সময় লোকের ভিড় থাকে।
  • যে দোকান টি দিবেন সেই দোকানের ট্রেড লাইসেন্স থাকতে হবে।
  • নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট করার জন্য মুল্ধন লাগবে, কিন্তু নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট চালু হওয়ার পর লেনদেন শুরু হলে আপানকে সেই মুল্ধন ফেরত দিবে।
  • নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার জন্য কোনো রকম রেজিশট্রেসন ফি লাগে না।
  • উপরের সব কিছু Ready থাকলে আপনি Nogod Customer Care চলে যাবেন। সেখানে গেলে আপনার যাবতীয় কাগজ পত্র চাইলে দিয়ে দিবেন। তারাই আপনাকে নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট করে দিবে।
  • এর পর ১০ থেকে ১৫ দিন সময় লাগতে পারে।।

আশা করি আপনারা নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম জেনে গেছেন। নগদ উদ্যোক্তা হওয়ার নিয়ম জানতে হলে উপরের স্টেপ গুলো ফলো করুন।

নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খুলতে হবে কেন | নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম

নগদ উদ্যোক্তা হয়ে ব্যবসা করতে চাইলে আপনাকে নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খুলতে হবে। টাকা লেনদেন করার জন্য নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট প্রয়োজন পড়ে। নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট করে বাংলাদেশের অনেক ব্যক্তি ব্যবসা করে থাকে। আপনিও যদি নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট করে ব্যবসা করতে চান তাহলে আপনার নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট দরকার হবে। যদি আপনি নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট করতে চান তাহলে নিচের স্টেপ গুলো ফলো করলে নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম জানতে পারবেন। তাহলে বুঝতে পারলেন তো নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খুলতে হবে কেন?

নগদ উদ্যোক্তা কমিশন কত | নগদ উদ্যোক্তা কমিশন

আপনি যদি নগদ উদ্যোক্তা হয়ে ব্যবসা করেন তাহলে আপনি প্রতি এক হাজারে নগদ উদ্যোক্তা কমিশন পাবেন মাত্র ৪ টাকা ১০ পয়সা। 

এখন আপনি যত বেশি টাকা লেনদেন করবেন আপনার তত বেশি লাভ হবে। এজন্য দোকান সব সময় জন সমাগম জায়গায় করবেন। যেখান মানুষের ভিড় সব সময় থাকে।

আর্টিকেলের শেষ কথাঃ নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম 

নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম যদি আপনাদের  ভালো লাগে তাহলে একটা কমেন্ট ও শেয়ার করতে ভুলবেন না। আর যদি ভালো না লাগে তাহলে এড়িয়ে যান।

যেকোন সমস্যা হলে নগদে যোগাযোগ করুন। তাহলে আমরা জানলাম নগদ উদ্যোক্তা একাউন্ট খোলার নিয়ম ।

অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

Please do not enter any spam link in the comment box.

আরকে রায়হান নোটিফিকেশন