business loans, commercial loan, auto insurance quotes, motorcycle lawyer

ইমেইল মার্কেটিং টিউটোরিয়াল - ইমেইল মার্কেটিং শেখার সহজ উপায়

বন্ধুরা আজকে আমরা জানব Email Marketing Bangla Tutorial Pdf - ইমেল মার্কেটিং করে আয় করুন। অনেকই জানেন না ইমেইল মার্কেটিং করে কিভাবে আয় করতে হয় বা কিভাবে ইমেল মার্কেটিং করে। যদি আপনি ইমেইল মার্কেটিং করতে না জানেন বা ইমেইল মার্কেটিং করে আয় করে কিভাবে তা যদি না জানেন  তাহলে আপনি আজকের পোস্ট থেকে জানতে পারবেন কিভাবে ইমেল মার্কেটিং করে আয় করতে হয়।

ইমেল মার্কেটিং,ইমেইল মার্কেটিং, ইমেইল মার্কেটিং কি, ইমেইল মার্কেটিং করে আয়, ইমেইল মার্কেটিং শেখার সহজ উপায়, ইমেইল মার্কেটিং pdf, ইমেইল মার্কেটিং কোর্স, ইমেইল মার্কেটিং করতে কি কি বিষয় গুলো খেয়াল রাখতে হয়, ইমেইল মার্কেটিং কিভাবে করা হয়, ইমেইল মার্কেটিং বই, ইমেইল মার্কেটিং টুলস, ইমেইল মার্কেটিং এর গুরুত্ব ও প্রয়োজনীয়তা, email marketing bangla, email marketing bangla tutorial, email marketing bangladesh, email marketing bangla tutorial pdf, email marketing company in bangladesh, email marketing course in bangladesh

ইমেইল মার্কেটিং কি

ইমেইল মার্কেটিং (Email Marketing Bangla) হল অনলাইন মার্কেটিং এর সবচেয়ে শক্তিশালী ও গুরুত্তপূর্ণ একটি হাতিয়ার। একটি কথা আমরা সবাই শুনেছি যে, “প্রচারেই প্রসার”। আর ইমেইল মার্কেটিং হলো প্রচারের জন্য অনেক কার্যকরী একটি মাধ্যম। ইমেইল মার্কেটিংয়ের মাধ্যমে এক সাথে হাজার হাজার মানুষের কাছে পণ্য বা ব্যবসায়ের প্রচার করা সম্ভব।

যদিও আমাদের দেশে এখনো এটা বেশি প্রচলিত না তবে বর্তমান বিশ্বে অনন্য শক্তিশালী দেশগুলোতে ইমেইল মার্কেটিং বিজ্ঞাপনের খুব বেশি জনপ্রিয় একটি মাধ্যম। আমরা যেমন প্রতিদিন ঘুম থেকে উঠে ফেসবুকের নোটিফিকেশন চেক করি তেমনি উন্নত দেশ গুলোর মানুষ প্রতিদিন সকালে তাদের মেইল চেক করেন। তাহলে চলুন Email মার্কেটিং সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে নেই।

ইমেল মার্কেটিং সম্পর্কে আজকের পোস্ট থেকে যা যা জানতে পারবো

  • ইমেইল মার্কেটিং কি
  • ইমেইল মার্কেটিং কেন করব
  • টার্গেটেড ইমেল কিভাবে পাব
  • ইমেইল মার্কেটিং কিভাবে করব
  • ইমেইল মার্কেটিং টুলস:
  • ইমেইল মার্কেটিং করে আয় 

ইমেইল মার্কেটিং কি

ইমেইলের মাধ্যমে একসাথে হাজার হাজার মানুষের কাছে কোন পণ্য বা ব্যবসায়ের প্রচার করার নামই হলো Email মার্কেটিং। ইমেইল মার্কেটিং এর মাধ্যমে আপনি খুব দ্রুত এবং সহজেই আপনার পণ্য বা ব্যবসায়ের মার্কেটিং করে ব্যবসায় বাড়িয়ে নিতে পারবেন।

ইমেইল মার্কেটিং করে আয়

আপনি কত টাকা আয় করতে পারবেন তা সম্পূর্ণ আপনার উপর ডিপেন্ট করবে । তারপরও যদি বলতে হয় মাসে ৫০ হাজার থেকে ৩ লাখ বা তার চেয়েও বেশী ইনকাম করতে পারেন। তবে অনেক বেশি দক্ষ ও পরিশ্রমী হতে হবে।

পিএসডি ইমেইল টেমপ্লেট, এইচটিএমএল ও সিএসএস দিয়ে ইমেইল টেমপ্লেট, পিএসডি টু এইচটিএমএল কনভার্ট করে ইমেইল টেমপ্লেট ইত্যাদি বিভিন্ন মার্কেটপ্লেস যেমন ওডেস্ক, ইলেন্স, ফাইবার ইত্যাদি থেকে ইনকাম করতে পারেন। এছাড়াও বিভিন্ন ইমেইল টেমপ্লেট বিক্রির ওয়েবসাইটে আপনার ইমেইল টেমপ্লেট জমা দিয়েও ইনকাম করতে পারেন।

আপনি যদি ইংলিশে ভাল লিখতে পারেন তাহলে বিভিন্ন ই-কমার্স ওয়েবসাইটের পণের ইমেইল নিউজলেটার লিখেও প্রচুর ইনকাম করতে পারবেন। মার্কেটপ্লেস গুলােতে এর চাহিদা অনেক বেশি।

বিভিন্ন niches বা বিষয়ের এর উপর ইমেইল লিষ্ট তৈরী করে, তা বিক্রি করে দিয়েও ইনকাম করতে পারবেন। মার্কেটপ্লেস গুলিতে ক্লাইয়িন্ট এর ইমেইল লিষ্ট তৈরী করে দেওয়ার সাথে সাথে দিন দিন বিশাল ইমেইল লিষ্ট তৈরী হতে থাকবে যা আপনার জীবনের সবচেয়ে বড় সম্পদ হয়ে দাঁড়াবে।

মার্কেটপ্লেস গুলিতে সবচেয়ে বেশী ইনকাম করতে পারবেন ইমেইল সেন্ডিং এর কাজ করে । ইমেইল সেন্ড, লিস্ট ক্লিনিং, ইমেইল সার্ভার সেটআপ, email Campaign সেটআপ, অটো স্পন্ডার সেটআপ ইত্যাদি কাজ করে আয় করতে পারেন ।

তারচেয়েও বেশী আয় করতে পারেন ইমেইল মার্কেটার অ্যাডভাইজার হিসাবে । কোন কোম্পানির ইমেইল মার্কেটিং টিমের সকল কাজগুলাে কখন ও কিভাবে হবে তা নির্ধারণ, সংযােজন-বিয়যােজন, নির্দেশ ইত্যাদি পরামর্শ দেওয়া। মানে ইমেইল লিস্ট, রাইটিং, টেমপ্লেট থেকে শুরু করে Campaign সেটআপ ও তার ফলাফল পর্যন্ত দিক নির্দেশনা প্রদান করে আয় করতে পারেন মােটা অংকের ইনকাম।

অ্যাফিলিয়েট বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান আমাজন, ক্লিকবাংক ইত্যাদিতে জড়িত হয়ে তাদের পণ্য বা সেবা বিক্রির জন্য ইমেইল মার্কেটিং করে আয় করতে পারেন । অ্যাফিলিয়েশনের মাধ্যমে আয়ের পরিমান হিসেব করে বলা কষ্টসাধ্য। অ্যাফিলিয়েশন করে মাসে আয় করা যায় ১০০ ডলার থেকে আনলিমিটেড ডলার ।

এছাড়াও ইমেইল মার্কেটিং জানা থাকলে আরাে অনেকগুলাে ক্ষেত্রেই কাজ করতে পারেন। যেমন, আপনি আপনার নিজের কোন পণ্য বিক্রি বা সার্ভিস প্রদানের জন্য ইমেইল মার্কেটিং করে অনেক মােটা অংকের টাকা আয় করতে পারেন ।

ইমেইল মার্কেটিং সফলভাবে শেখার একটা পূর্ণাঙ্গ রােডমাপ

১। আপনাকে প্রথমে একটা লক্ষ্য নির্ধারণ করতে হবে যে আপনি ইমেইল মার্কেটিং শিখবেন কি না। কারন আজ ইমেইল মার্কেটিং বা এসইও, কাল প্রােগ্রামিং পরশু মােবাইল আপস তৈরি তার পরদিন আরেকটা বিষয় এভাবে করলে কোন দিনই কোন কিছু ভালভাবে শিখতে পারবেন না। সুতরাং যে কোন একটা বিষয়ে ফোকাস দিন তাহলে সফল ভাবে শিখে আয় করতে পারেন ।

২। কোন কিছু শেখার আগে আপনাকে একটি প্লান করতে হবে । কারন পরিকল্পনা সারা কাজ করলে বেশী দূর আগাতে পারবেন না । প্লান করার সময় চিন্তা করবেন যে, কোন কাজটি আপনি করতে চান ইমেইল টেমপ্লেট ডিজাইন, রাইটিং, লিস্ট বিল্ডিং, ইমেইল সেন্ডিং না ইমেইল মার্কেটার অ্যাডভাইজিং তা আগে ঠিক করুন এবং কাজটি শেখার জন্য কতটুকু সময় দিতে পারবেন তা হিসাব করে পরিকল্পনা তৈরি করুন ।

কেন অন্যান্য মার্কেটিং থেকে ইমেইল মার্কেটিং বেশী শক্তিশালী 

বর্তমানে ইন্টারনেট মার্কেটিং এ সব চেয়ে বড় হাতিয়ার হল ইমেইল মার্কেটিং। কারন, অল্প সময়ে অধিক কার্যকরী ফলাফলের জন্য ইমেইল মার্কেটিং এর বিকল্প নাই। ইমেইল মার্কেটিং কেক্রিয়েটিভ কাজ হিসাবে ও ধরা যেতে পারে। কিভাবে আপনি আপনার ক্রেতাদের কাছে পণ্যটিকে উপস্থাপন করবেন, তা নিতাই আপনার উপর নির্ভর করে। তাই আপনি যত সৃজনশীল উপায়ে পণ্যকে উপস্থাপন করতে পারবেন আপনার পন্যের বিক্রি ও তত বেশি হবে।

ইমেইল মার্কেটিং এর কিছু সুবিধাসমূহ:

ইমেইল মার্কেটিং করতে বিশেষ কোন দক্ষতার প্রয়ােজন হয় না । • ইমেইল মার্কেটিং করতে অতিরিক্ত কোন হার্ডওয়্যার প্রয়ােজন হয় না ।

স্বল্প সময়ে অধিক মানুষের কাছে একসাথে আপনার তথ্যের প্রচার করা যায় । পন্য বা সেবার বিক্রয়ের পরিমাণ বেড়ে যাওয়ার সম্ভবনার বেশি থাকে। কারণ একটি ওয়েবসাইটে একজন ব্যবহারকারি এক সপ্তাহে যতবার না ভিজিট করে তার চেয়ে ইমেইল বেশি ইনবক্স চেক করে । ক্লাইয়িন্ট এর ইমেইল লিষ্ট তৈরী করে দেওয়ার সাথে সাথে দিন দিন নিজের পন্য বা সেবার বিক্রয়ের বা এফিলিয়েশনের জন্য বিশাল ইমেইল লিষ্ট তৈরী হতে থাকে ।

ইমেইল মার্কেটিং এর সুবিধা সমূহ 

১। অল্প খরচ: অন্যান্য মার্কেটিং যেমন নিউজপেপার, টিভি চ্যানেল ইত্যাদি থেকে ইমেইল মার্কেটিং এর খরচ খুবই কম। যেমন, 1000 মেইল পাঠতে মাত্র এক থেকে দেড় ডলার খরচ হয়। এই জন্য বেশী ভাগ মানুষের পছন্দ ইমেইল মার্কেটিং। 

২। অল্প সময়: বিভিন্ন অনলাইন মার্কেটিং পদ্ধতির যেমন seo, smm ইত্যাদি করে কোন কিছুর প্রচার করাতে অনেক সময় ব্যয় হয়। আর ইমেইল মার্কেটিং করতে অনেক কম সময় দ্রুত ফলাফল পাওয়া যায়। 

৩। সহজ ব্যবহার বিধি: ইমেইল পেরণ বা গ্রহন করার জন্য বেশী কিছু দক্ষতার প্রয়ােজন হয় না তাই এই পদ্ধতি যে কেউ সহজে ব্যবহার করতে পারে। 

৪। বিক্রয় বৃদ্ধি: অল্প সময়ে বেশী প্রচারের ফল শুতিতে পন্যের বিক্রির পরিমান বৃদ্ধি পেতে থাকবে। কারন, যত বেশী প্রচার তত বেশী বিক্রয়। আর বেশী প্রচারে ওয়েবসাইট এর মত google penalty খাওয়ার ভয় নাই তবে কিছু নিয়ম নীতি মেনে চলতে হবে। 

৫। গ্রাহকের প্রতিক্রিয়া: আপনি যে পণ্য ও সেবা প্রদানের জন্য প্রচার চালাচ্ছেন তাতে গ্রাহকের কেমন প্রতিক্রিয়া হচ্ছে তা অনুমান করা যায়। কারন, কোনাে ব্যবসার সাফল্যের জন্য গ্রাহকের ফিডব্যাক হল একটি অমূল্য হাতিয়ার। 

৬। টার্গেটেড গ্রাহক তৈরি: ইমেইল মার্কেটিং করে নির্দিষ্ট পন্যের নির্দিষ্ট গ্রাহক তৈরি করা যায়। এতে পন্যের বিক্রির পরিমান যেমন বৃদ্ধি, তেমনি সময় ও খরচ কমে যায়। 

৭। আগ্রহ সৃষ্টি: একজন গল্পকার যেমন গল্পের মধ্যে পাঠককে ধরে রাখে, সেভাবে সুন্দর সুন্দর ছবি আর লিখা দ্বারা দৃষ্টি নন্দন মেইল তৈরী করে গ্রাহক কে আকৃষ্ট করে ধরে রাখা যায়।

৮। পরিশ্রম কম: যেহেতু সফটওয়্যার দ্বারা ইমেইল সেন্ড করতে হয় তাই অন্যান্য মার্কেটিং থেকে পরিশ্রম কম। শুধু একবার মেইল সেন্ডিং সেটআপ করলেই কাজ শেষ। 

৯। নির্দিষ্ট সময়ে মার্কেটিং: বাংলাদেশি সময়ে যদি আমেরিকায় প্রচারনা চালানাে তাহলে কোন লাভ নাই কারন, তখন তারা ঘুমে। তাই ইমেইল মার্কেটিং এ মেইল সেন্ডিং এর সময় নির্ধারণ করে রেখে নির্দিষ্ট সময়ে নির্দিষ্ট পন্যের প্রচারনা চালানাে যায়। 

১০। গ্রাহক হারানাের ভয় কম : অনলাইনে বিভিন্ন কেনাবেচার সাইট রয়েছে। যে গুলি থেকে গ্রাহক গণ বিভিন্ন পণ্য কিনে থাকে। যেমন clickbank.com ডিজিটাল প্রােডাক্ট এর জন্য একটি কেনা বেচার সাইট। কিন্তু সবাই কি প্রত্যেক দিনই clickbank এর সাইট ভিজিট করছেনা। 

তার মানে নতুন কোন প্রােডাক্ট আসলে যে ব্যক্তি ঐ সাইটে ভিজিট করছেনা সেতাে ঐ প্রােডাক্ট সম্পর্কে জানতে পারছি না এবং তারা একজন সম্ভাব্য ক্রেতা কে হারাতে পারে। সুতরাং clickbank যদি তাদের নতুন প্রােডাক্ট সম্পর্কে ইমেইল মার্কেটিং করে থাকে তাহলে ঐ ব্যক্তি মেইলটি তার ইনবক্সে পেয়ে যাবে। ফলে সে প্রােডাক্টটি সম্পর্কে জানতে পারবে। 

যদি তার প্রােডাক্টটি পছন্দ হয় তাহলে সে এটি কেনার ব্যাপারে আগ্রহী হতে পারে এবং প্রােডাক্ট বিক্রি হওয়ার সম্ভাব্য তা বেড়ে যাবে। সুতরাং ইমেইল মার্কেটিং এর গুরুত্ব কত খানি সেটি এ উদাহরণ থেকেই পরিষ্কার হয়ে যাচ্ছে। বিভিন্ন মার্কেটপ্লেস এ প্রত্যেক দিন ইমেইল মার্কেটিং এর অসংখ্য কাজ জমা হচ্ছে। আপনি ও ভালভাবে কাজটি শিখে নিয়ে শুরু করতে পারেন ইমেইল মার্কেটিং এ ফ্রিল্যান্সিং ক্যারিয়ার।

ইমেইল মার্কেটিং শিখে আয় করতে পারবেন যেই কয়টি উপায়ে 

১। পিএসডি ইমেইল টেম্পলেট তৈরি করে আয়। আপনি যদি দৃষ্টি নন্দন ইমেইল টেম্পলেট তৈরি করতে পারেন, তাহলে বিভিন্ন মার্কেট প্লেস থেকে মাসে গড়ে ৪০০-৬০০ ডলার আয় করতে পারবেন। 

২। এইচটিএমএল ইমেইল টেম্পলেট তৈরি করে আয় । যদি আপনি এইচটিএমএল দিয়ে ইমেইল টেম্পলেট এবং পিএসডি টু এইচটিএমএল ইমেইল টেম্পলেট তৈরি করতে পারেন, তাহলে বিভিন্ন মার্কেট প্লেস থেকে মাসে গড়ে ৫০০-১০০০ ডলার আয় করতে পারবেন। 

৩। ইমেইল কনটেন্ট রাইটার হিসেবে আয়। রাইটারদের চাহিদা মার্কেটপ্লেসে অনেক বেশি। আপনি যদি ইংলিশে ভাললিখতে পারেন তাহলে ইমেইল কনটেন্ট রাইটার হিসাবে কাজ করলে আপনি মাসে গড়ে ২০০-৫০০ ডলার আয় করতে পারবেন। 

৪। ইমেইল লিস্ট বিল্ডিং করে আয়। ক্লাইয়িন্ট এর জন্য বিভিন্ন niches এর উপর ইমেইল লিষ্ট তৈরী করে দেওয়ার মাধ্যমে আপনি মাসে গড়ে ১০০৩০০ ডলার আয় করতে পারবেন। এছাড়া, ক্লাইয়িন্ট এর ইমেইল লিষ্ট তৈরী করে দেওয়ার সাথে সাথে দিনদিন নিজের পন্য বা সেবার বিক্রয়ের বা এফিলিয়েশনের জন্য বিশাল ইমেইল লিষ্ট তৈরী হতে থাকে। বলতে গেলে এক ঢিলে দুই পাখি ।

৫। অ্যাফিলিয়েশনের মাধ্যমে আয়। অ্যাফিলিইয়েট বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান clickbank, clicksure ইত্যাদিতে জড়িত হয়ে তাদের পণ্য বা সেবা বিক্রির জন্য ইমেইল মার্কেটিং করে আয় করতে পারেন। অ্যাফিলিয়েশনের মাধ্যমে আয়ের পরিমান হিসেব করে বলা কষ্ট সাধ্য। অ্যাফিলিয়েশন করে মাসে আয় করা যায় ৫০০ ডলার থেকে আনলিমিটেড। 

উপরের ৫টি কর্মক্ষেত্রে আপনি কাজ করতে পারবেন, শুধুমাত্র “ইমেইল মার্কেটিং” ভাল ভাবে জানা থাকলে। এখানে শুধুমাত্র প্রধান ৫টি কর্মক্ষেত্রের কথা উল্লেখ করা হয়েছে। এছাড়া আরাে অনেক গুলাে ক্ষেত্রেই কাজ করতে পারবেন ইমেইল মার্কেটিং জানা থাকলে। সুতরাং ইমেইল মার্কেটিং ভাল ভাবে শিখুন, যাতে করে আপনার ভবিষ্যৎ ক্যারিয়ার অনেক উজ্জ্বল হবে।

ইমেইল মার্কেটিং এর গুরুত্ব ও প্রয়োজনীয়তা

আসলে আপনি যদি ইমেইল মার্কেটিং শিখতে পারেন, তাহলে এই ইমেইল মার্কেটিং করেই আপনি অনেক কিছু করতে পারবেন। আপনি নিজে নিজে বিভিন্ন কোম্পানির পণ্যের মার্কেটিং করে অ্যাফিলিয়েট কমিশন আয় করতে পারেন। কিংবা নিজের ব্যবসা থাকলে, আপনার পণ্যের জন্যেও ইমেইল মার্কেটিং করে আপনার পণ্যের বিক্রি বাড়িয়ে নিতে পারেন। আসুন এবার নিচের পয়েন্টগুলোতে ইমেইল মার্কেটিং করে কি কি লাভ করা সম্ভব সেই সম্পর্কে জেনে নিই।

  • ইমেল মার্কেটিং করে আপনি নতুন নতুন কাস্টমার পেতে পারেন।
  • আপনার ওয়েবসাইটে অনেক বেশি ভিজিটর নিয়ে আসতে পারেন ইমেইল মার্কেটিং করে।
  • ইমেইল মার্কেটিং করেই আপনি আপনার নতুন নতুন জিনিস সম্পর্কে মানুষকে জানাতে পারবেন। আর তারপর তারা আকৃষ্ট হয়ে আপনার ওয়েবসাইটে ভিজিট করবেন।
  • ইমেইল মার্কেটিং করে আপনি বিভিন্ন পণ্যের মার্কেটিং করে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং এর মাধ্যমে অনেক অনেক টাকা আয় করতে পারেন।

টার্গেটেড ইমেল কিভাবে পাব ( Niche Targeted Email List ) Bangla

ইমেইল মার্কেটিং করার জন্য সবার আগে দরকার হবে niche targeted email list অর্থাৎ টার্গেটেড ইমেল কিভাবে পাবেন সেটাই আমি বিস্তারিত বলতেছি।

Niche Targeted Email List দুই ভাবে পাওয়া যাবে 

  • Niche Targeted Email List হয় কিনে নিতে হবে
  • Niche Targeted Email List নিজেকে খুজে বের করতে হবে।

Niche Targeted Email List খুজে বের করার জন্য আপ্নদের আমি কিছু টেকনিক শিখিয়ে দিব যা প্রয়োগ করে আপনি Niche Targeted Email List খুজে বের করতে পারবেন।

গুগলে গিয়ে সার্চ দিবেন 

  • manager health florida contact "gmail.com" site:linkedin.com
  • targeted keyword এর জায়গায় আপনাদের টারগেটেট কিওয়ার্ড দিবে
  • state এর জায়গায় আপনার টারগেটেট দেশের নাম দিবেন

তারপর গুগল সার্চ দিবেন।

যেমন আমি সার্চ দিচ্ছি 

manager health florida contact "gmail.com" site:linkedin.com

গুগল সার্চ দিলে নিচের মতো আসবে আপনারা control+A চেপে সব কিছু কপি করবেন তারপর

ইমেল মার্কেটিং,ইমেইল মার্কেটিং, ইমেইল মার্কেটিং কি, ইমেইল মার্কেটিং করে আয়, ইমেইল মার্কেটিং শেখার সহজ উপায়, ইমেইল মার্কেটিং pdf, ইমেইল মার্কেটিং কোর্স, ইমেইল মার্কেটিং করতে কি কি বিষয় গুলো খেয়াল রাখতে হয়, ইমেইল মার্কেটিং কিভাবে করা হয়, ইমেইল মার্কেটিং বই, ইমেইল মার্কেটিং টুলস, ইমেইল মার্কেটিং এর গুরুত্ব ও প্রয়োজনীয়তা, email marketing bangla, email marketing bangla tutorial, email marketing bangladesh, email marketing bangla tutorial pdf, email marketing company in bangladesh, email marketing course in bangladesh

তারপর সব কিছু কপি করে এই ওয়েবসাইটে https://email-checker.net/email-extractor যান। যাওয়ার পর আপনারা একটা বক্স দেখতে পাবেন সেই বক্সে কপি করা সব কিছু পেস্ট করবেন করার পর Extract Button ক্লিক করুন আর দেখতে সব গুল ইমেল পেয়ে যাবেন। 

ইমেল মার্কেটিং,ইমেইল মার্কেটিং, ইমেইল মার্কেটিং কি, ইমেইল মার্কেটিং করে আয়, ইমেইল মার্কেটিং শেখার সহজ উপায়, ইমেইল মার্কেটিং pdf, ইমেইল মার্কেটিং কোর্স, ইমেইল মার্কেটিং করতে কি কি বিষয় গুলো খেয়াল রাখতে হয়, ইমেইল মার্কেটিং কিভাবে করা হয়, ইমেইল মার্কেটিং বই, ইমেইল মার্কেটিং টুলস, ইমেইল মার্কেটিং এর গুরুত্ব ও প্রয়োজনীয়তা, email marketing bangla, email marketing bangla tutorial, email marketing bangladesh, email marketing bangla tutorial pdf, email marketing company in bangladesh, email marketing course in bangladesh

এই ছিল টারগেটেট ইমেইল কিভাবে খুজে বের করতে হয়। 

ইমেইল মার্কেটিং কিভাবে করব? ইমেইল মার্কেটিং কিভাবে করা হয়

ইমেইল মার্কেটিংয়ের জন্য ডেস্কটপবেস ইমেইল সার্ভার অথবা অনলাইন ইমেইল সার্ভার ব্যবহার করুন। কিন্তু আমার কাছে সবচেয়ে সুবিধাজনক পদ্ধতি হচ্ছে অনলাইন ইমেইল সার্ভার ব্যবহার করা। কারণ ডেস্কটপবেইস ইমেইল সার্ভার তৈরির জন্য আপনার কাছে একটি ভালো কনফিগারের পার্সোনাল কম্পিউটার এবং ভালো স্পীডের ইন্টারনেট কানেকশন থাকতে হবে। আরো থাকতে হবে একটি ইমেইল সেন্ডিং সফটওয়্যার। আর আপনি যদি এগুলো কিনতে চান তাহলে গুনতে হবে মোটা অংকের টাকা। এছাড়াও ডেস্কটপবেস ইমেইল সার্ভার ব্যাবহার করলে আপনার আইপি ব্ল্যাক লিস্ট হওয়া এবং মেইল স্প্যামে যাওয়ার সম্ভাবনা খুব বেশী। সেই সাথে সার্ভার ক্রাশ হওয়ার ঝুঁকি তো থাকছেই। কিন্তু অনলাইন ইমেইল সার্ভারের খরচ তুলনামুলক অনেক কম সাথে ব্যাবহারও অনেক সহজ এবং নিরাপদ।

ইমেইল মার্কেটিং টুলস:

Email মার্কেটিং আপনার ব্যবসায় বৃদ্ধির ৮০% কার্যকর পদ্ধতি। তবে আপনি যদি মার্কেটিং এর জন্য সঠিক টুলস ব্যবহার করতে না পারেন তাহলে আপনি ক্রেতাদের নিকট পৌঁছাতে পারবেন না। আপনার টুলস যদি সঠিক না হয় তাহলে আপনার পাঠানো ইমেইল স্প্যাম বক্স এ চলে যাবে ফলে সেগুলো গ্রাহকেরা দেখবেন না।

এজন্য Email মার্কেটিংয়ের জন্য টুলস ব্যবহারের জন্য সবসময় সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে এবং সঠিক টুলস বেবহার করে Email মার্কেটিং করতে হবে। নিচে ফ্রি এবং পেইড জনপ্রিয় কিছু  টুলস এর লিস্ট দেয়া হল:

ইমেইল মার্কেটিং টুলস লিস্ট:

  • Mailchimp
  • GetResponse
  • MailerLite
  • Sendy
  • Sender
  • HubSpot Marketing
  • MotionMail
  • Cakemail
  • Mail Genius
  • ConvertKit
  • Reach Mail
  • Pinpointe
  • SendinBlue
  • EasySendy
  • Leadfeeder

ইমেইল মার্কেটিং করে আয়

ইমেইল মার্কেটিং করে আয় - আপনি হয়ত ফাইভার এর কথা শুনেছেন। ফাইভার এ ইমেল মার্কেটিং এর অনেক কাজ পাওয়া যায়। আপনি ফাইভারে একটা আকাউন্ট করে সেখানে ইমাইল মার্কেটিং এর গিগ বানিয়ে আপনি আয় করতে পারবেন। ফাইভারে ইমেল মার্কেটিং এর অনেক চাইদা আছে। খুব সহজেই আপনি ইমেল মার্কেটিং করে ২০ - ৩০ হাজার টাকা আয় করতে পারবেন। দেখুন তার ফাইভারে ১৮ টি অর্ডার রানিং আছে।

ইমেল মার্কেটিং,ইমেইল মার্কেটিং, ইমেইল মার্কেটিং কি, ইমেইল মার্কেটিং করে আয়, ইমেইল মার্কেটিং শেখার সহজ উপায়, ইমেইল মার্কেটিং pdf, ইমেইল মার্কেটিং কোর্স, ইমেইল মার্কেটিং করতে কি কি বিষয় গুলো খেয়াল রাখতে হয়, ইমেইল মার্কেটিং কিভাবে করা হয়, ইমেইল মার্কেটিং বই, ইমেইল মার্কেটিং টুলস, ইমেইল মার্কেটিং এর গুরুত্ব ও প্রয়োজনীয়তা, email marketing bangla, email marketing bangla tutorial, email marketing bangladesh, email marketing bangla tutorial pdf, email marketing company in bangladesh, email marketing course in bangladesh

আপনি যদি ইমেল মার্কেটিং এর উপর দক্ষতা অর্জন করেন তাহলে আপনি এখানে কেনো চলে যান ফাইভারে আর হাজার হাজার ডলার ইনকাম করুন। ফাইভারে যদি সহজ কোনো কাজ থাকে সেটি হলো ইমেইল মার্কেটিং এর কাজ। 

ইমেইল মার্কেটিং সম্পর্কে কিছু কথা

খুব সংক্ষিপ্তভাবে যদি “ইমেইল মার্কেটিং” সম্পর্কে বলতে হয়, তাহলে বলতে হবে ইমেইল আদান-প্রদান এর মাধ্যমে কোন পণ্য বা সেবার বিপণন ব্যবস্থা । ইমেইল মার্কেটিং বা সরাসরি বিপণন ব্যবস্থা হল মার্কেটিং-এর এমন একটি পদ্ধতি যার মাধ্যমে সরাসরি কাস্টমারের ইমেইলে কোন পণ্য বা সেবার বিবরণসহ পণ্য সম্পর্কিত অন্যান্য তথ্যাবলী প্রেরণ করা হয়। যার ফলে কোন কাস্টমার ওই পণ্য বা সেবা সম্পর্কে প্রাথমিক ধারণাগুলাে ইমেইলের ইনবক্সেই পেয়ে যান এবং তিনি পণ্যটি কিনতে আগ্রহী হয়ে ওঠেন।

“ইমেইল মার্কেটিং” ব্যবহার করে প্রতিদিন দেশ-বিদেশের হাজার হাজার কোম্পানি তাদের পণ্য বা সেবার বিজ্ঞাপন প্রচার করছে। কোম্পানির একদিকে যেমন বাড়ছে বিক্রয়ের পরিমাণ, তেমনি সম্প্রসারিত হচ্ছে তাদের সুনাম ও খ্যাতি। নিজের পন্যও বিক্রি ছাড়াও বিভিন্ন কোম্পানির পণ্য বা সেবার এফিলিয়েশনের মাধ্যমেও আয় করতে পারেন। এছাড়া ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস গুলােতেও দিন দিন বাড়ছে ইমেইল মার্কেটিং-এর কাজ। মার্কেটপ্লেস গুলাের তথ্যানুযায়ী, ইমেইল মার্কেটিং এ একজন ফ্রিলান্সার মাসে ৫০ হাজার টাকা থেকে ৩ লাখ টাকা পর্যন্ত আয় করতে পারেন। ক্ষেত্র বিশেষে এই আয় কয়েক হাজার ডলার পর্যন্ত হতে পারে। আর এ হিসাবে ফ্রিল্যান্সার হতে চাওয়া তরুণ-তরুণীদের অন্যতম পছন্দ হতে পারে “ইমেইল মার্কেটিং”। ।

উইকিপিডিয়ার তথ্যানুযায়ী, শুধুমাত্র আমেরিকাতে ২০১১ সালে ১.৫১ বিলিয়ন ডলার ব্যয় করা হয় ইমেইল মার্কেটিংয়ের জন্য, যেটা বর্তমানে ২.৪৮ বিলিয়ন ডলারে পৌঁছেছে। আরেকটি মজার তথ্য আছে, ইন্টারনেটের মাধ্যমে যত বিক্রি হয় তার ২৪ শতাংশই ইমেইল মার্কেটিংয়ের মাধ্যমে। তাহলে আমার মতাে আপনিও বােঝতেই পাচ্ছেন ইমেইল মার্কেটিং কতটা গুরুত্বপূর্ণ।

শেষ কথা

বন্ধুরা আজকের পোস্ট এই পর্যন্ত। যদি পোস্টের ভিতর কোন ভুল ত্রুটি হয়ে থাকে তাহলে সুন্দর কঅরে একটা কম্মেন্ট করে আমাকে জানাবেন আমি চেস্টা করব তার সংশোধন করতে। আর যদি পোষ্ট টি ভাল লাগে তাহলে শেয়ার করতে ভুল বেন। 

ইমেল মার্কেটিং,ইমেইল মার্কেটিং, ইমেইল মার্কেটিং কি, ইমেইল মার্কেটিং করে আয়, ইমেইল মার্কেটিং শেখার সহজ উপায়, ইমেইল মার্কেটিং pdf, ইমেইল মার্কেটিং কোর্স, ইমেইল মার্কেটিং করতে কি কি বিষয় গুলো খেয়াল রাখতে হয়, ইমেইল মার্কেটিং কিভাবে করা হয়, ইমেইল মার্কেটিং বই, ইমেইল মার্কেটিং টুলস, ইমেইল মার্কেটিং এর গুরুত্ব ও প্রয়োজনীয়তা, email marketing bangla, email marketing bangla tutorial, email marketing bangladesh, email marketing bangla tutorial pdf, email marketing company in bangladesh, email marketing course in bangladesh

Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url